Photo: Google

প্রশ্নবোধক চিহ্ন দিয়ে শিরোনাম

আমি প্রায়ই ‘মাথায় যত প্রশ্ন আসে’ নামে একটি হর-নামচা লেখি। অনেক প্রশ্ন মনে আসে। তা সবার কাছে তুলে ধরি। তুলে ধরতে চাই। মনে চায়। মাঝে-মাঝে প্রশ্ন করি; মাঝে-মাঝে করি না। ‘মন্তব্যে’র সাথে ‘প্রশ্নে’র একটি ব্যাবধান আছে। মন্তব্য সবার কাছে সমাদৃত নাও হতে পারে। আমি মন্তব্য করছি কার কি আসে-যায়?! টেলিভিশনে মন্তব্য করলে এক কথা। যারা মন্তব্য করেন তাদের অনেক সাহস। তাদের মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে যে সব ঘটনাবলি ঘটতে পারে তা জেনেই মন্তব্য করেন। সে কারণেই বলছি তাদের অনেক সাহস।

তবে যারা খবর লেখেন তাদের মন্তব্য করার সুযোগ নেই। যা ঘটেছে তাই লিখতে হবে। দেশীয় সংবাদপত্রগুলো তাই করে। যা ঘটছে, তাই। হয়তো বা মাঝে-মাঝে এদিক-ওদিক হয় তবে শিরোনামগুলো প্রশ্নবোধক হয় না। আমাদের সমাজে প্রশ্নকারীকে শিশু মনে করা হয়; ওদের কোন পাপ নেই; ওরাতো সাধারণ প্রশ্নই করছে। সে কারণেই আমি প্রায়ই ‘মাথায় যত প্রশ্ন আসে’ নামে প্রশ্ন করি।

তবে আমি অনেকদিন ধরে দু’টি আন্তর্জাতিক খবরের ওয়েবসাইট অনুসরণ করি যেখানে দেখি প্রায় অর্ধেক প্রশ্নবোধক শিরোনাম। যেমন ধরুনঃ –

‘মাশরাফির অবসর ভাবনা: ক্রিকেট নাকি রাজনীতি?’, ‘বাবা মায়ের ঝগড়া কী প্রভাব ফেলে শিশুর উপর?’, ‘অটিজম নিয়ে এখনো কেন মানুষের ধারণা বদলাচ্ছে না?’, ‘’ডিজিটাল ইন্ডিয়ায়’ ধর্ষণকারীরা পার পেয়ে যাচ্ছে?’, ‘রাশিয়ার কূটনৈতিক নেটওয়ার্ক আসলে কত বড়?’, ‘ভারতে দলিতদের ঘোড়ায় চড়াও অপরাধ?’, ‘এটি কি মাছ নাকি রোবট? নাকি রোবট মাছ?’, ‘সিভিল এভিয়েশনের সংকট কোথায়?’, ‘অভ্যন্তরীণ রুটও কি বিদেশি এয়ারলাইন্সগুলোর দখলে যাবে?’, ‘সিভিল এভিয়েশনের সংকট কোথায়?’, ‘ধর্ষণ কেন ঠেকানো যাচ্ছে না?’, ‘আসলেই কি খালেদা জিয়া অসুস্থ?’

দেশীয় অনলাইন পত্রিকার কয়েকটি শিরোনাম উল্যেখ করিঃ- ‘খালেদা জিয়াকে ওষুধ বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে’, ‘সারাদেশে ‘খ’ সেট, কালকিনিতে ‘ক’ সেট!’, ‘এইচএসসি’র প্রথমদিনে অনুপস্থিত সাড়ে ১৩ হাজার’। এরা কিন্তু বলছে না ‘খালেদা জিয়াকে কেন ওষুধ বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে?’, বা ‘সারাদেশে ‘খ’ সেট, কালকিনিতে ‘ক’ সেট কেন?’, বা ‘এইচএসসি’র প্রথমদিনে অনুপস্থিত সাড়ে ১৩ হাজার কেন?’

আমার মাথায় কি শুধু প্রশ্ন আসতেই থাকবে? নাকি উত্তর পাবো?

— ekram.kabir.com

Leave a Reply

Your email address will not be published.